পাথর উত্তোলন বন্ধ থাকায় লাখো মানুষ মানবেতর জীবন যাপন করছে : নাদেল

প্রকাশিত: ১০:১৮ পূর্বাহ্ণ, আগস্ট ২৬, ২০২০

পাথর উত্তোলন বন্ধ থাকায় লাখো মানুষ মানবেতর জীবন যাপন করছে : নাদেল

কোম্পানীগঞ্জ প্রতিনিধি
আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল বলেছেন, ‘সিলেটের পাথর সম্পদ আমাদের অর্থনীতি এবং জীবন জীবীকার অন্যতম চালিকা শক্তি। যুগ যুগ ধরে এ অঞ্চলের মানুষেরা পাথর আহরণ করে তাদের জীবন রক্ষা করে আসছেন। হঠাৎ করে মানুষের এ জীবিকাস্থল বন্ধ হয়ে যাওয়ায় মানুষ দিশেহারা হয়ে পড়েছেন। ব্যবসায়ীরা দেউলিয়া হয়ে মানবেতর জীবন যাপন করছেন। আমরা এ করুন অবস্থা কামনা করি না। পাথর কোয়ারীগুলোতে পরিবেশ বিনষ্টের অভিযোগ বিবেচনায় এনে পরিবেশের ক্ষতি না করে পাথর আহরণের মাধ্যমে এ অঞ্চলের মানুষের কর্মক্ষেত্র পুনরায় সচল করা প্রয়োজন।’

 

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় নগরের একটি হোটেলের হলরুমে বৃহত্তর সিলেট পাথর সংশ্লিষ্ট জীবিকা নির্বাহকারী ব্যবসায়ী শ্রমিক ঐক্য পরিষদের সাথে সিলেটের আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দের এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি উপরোক্ত কথাগুলো বলেন।

 

সিলেটের লাখো মানুষের জীবিকাস্থল পাথর কোয়ারী সমূহ সচল করে কর্মহীন হয়ে পড়া মানুষের জীবন রক্ষার দাবিতে এ আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

 

সভায় নাদেল বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা গরীব মানুষের ভাগ্যোন্নয়নে নিবেদিত। এ অঞ্চলের বঞ্চিত খেটে খাওয়া মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠাই আমাদের রাজনীতি।’ তিনি সকল জটিলতার অবসান ঘটিয়ে সিলেটের পাথর সংশ্লিষ্ট জীবিকা সচল করতে প্রশাসনের সহায়তা কামনা করেন। এ লক্ষ্যে শীঘ্রই সিলেটের নেতৃবৃন্দ, জনপ্রতিনিধি এবং প্রশাসনের কর্মকর্তাদের মধ্যে গোল টেবিল বৈঠকের প্রয়োজনীয়তার কথা উল্লেখ করেন এবং এ লক্ষ্যে তার সার্বিক সহায়তা পুনর্ব্যক্ত করেন নাদেল।

 

ঐক্য পরিষদের আহবায়ক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আবদুন নূরের সভাপতিত্বে এবং সদস্য সচিব নুরুল আমিনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল।

 

আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক জাকির হোসেন, সিলেট সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আশফাক আহমেদ, সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সম্পাদক ফয়জুল আনোয়ার আলাউর, সিলেট চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিজের সভাপতি আবু তাহের মোহাম্মদ শোয়েব, মহানগর আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক এ টি এম হাসান জেবুল, সিলেট সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নিজাম উদ্দিন, সিলেট জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান জয়নাল আবেদীন, জৈন্তাপুর উপজেলা চেয়ারম্যান কামাল আহমেদ, সিলেট জেলা ট্রাক মালিক গ্রুপের সভাপতি গোলাম হাদী ছয়ফুল, সিলেটস্থ কোম্পানীগঞ্জ সমিতির সাধারণ সম্পাদক রফিকুল হক, জেলা আওয়ামী লীগ নেতা অ্যাডভোকেট হাবিবুর রহমান ভুট্টো।

 

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক জাকির হোসেন বলেন, আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মানুষের জীবন ও জীবিকার জন্যই রাজনীতি করেন। সিলেটের পাথর এবং মানুষের জীবন জীবিকা পরস্পর সম্পৃক্ত তাই মানুষের এ কর্মক্ষেত্র খুলে দিতে সমন্বিত পদক্ষেপ গ্রহণ জরুরী। তিনি জেলা প্রশাসন নেতৃবৃন্দ এবং ব্যবসায়ীদের মধ্যে সমন্বিত পদক্ষেপ গ্রহণের মাধ্যমে পরিবেশের সুরক্ষা করে পাথর সংশ্লিষ্ট জীবিকা সচল করার উপর গুরুত্ব আরোপ করেন।

 

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সিলেট সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আশফাক আহমেদ বলেন, সিলেটের বিরুদ্ধে একটা সুগভীর ষড়যন্ত্র চলছে। আমাদের চা শিল্প ধ্বংসের দ্বারপ্রান্তে, আমাদের তেল-গ্যাস আমরা ভোগ করতে পারিনা, তেমনিভাবে আমাদের পাথর শিল্পের উপর স্বার্থবাদীদের নজর পড়েছে। ধ্বংসের পায়তারা চলছে এ শিল্পও। এ ষড়যন্ত্র মোকাবেলায় ঐক্যবদ্ধভাবে আমাদের এগিয়ে যেতে হবে।

 

সিলেট চেম্বারের সভাপতি আবু তাহের মোহাম্মদ শোয়েব বলেন, পাথর সংশ্লিষ্ট জীবিকা বন্ধ মানে সিলেটের ধ্বংস ডেকে আনা। এ হীন উদ্দেশ্য বাস্তবায়নে একটা মহল তৎপর রযেছে। স্বার্থবাদী কুচক্রী এ মহল বিভিন্নভাবে তাদের ষড়যন্ত্রের জালবিস্তীর্ণ করে আমাদের ধ্বংসের পায়তারা করছে। একদিকে লাখো মানুষের জীবিকাস্থল পাথর কোয়ারী বন্ধ করে দিচ্ছে, অপরদিক পাথর আমদানীর ক্ষেত্রে একের পর এক প্রতিবন্ধকতা জটিলতা তৈরি করে আমাদের চরম দুর্দশায় ফেলে দিয়েছে। এ অবস্থা আর চলতে দেয়া যায়না। এ জটিলতার জরুরি অবসান দরকার।

 

সভাপতির বক্তব্যে পরিষদের সমন্বয়ক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আব্দুন নূর বলেন, সিলেটের প্রান্তিক জনপদে আজ দুর্ভিক্ষের পদধ্বনি। কর্মহীন মানুষেরা পরিজন নিয়ে খুব কষ্টে আছে। এ অবস্থা চলতে দেয়া যায়না। আওয়ামী লীগের রাজনীতি গণ মানুষের রাজনীতি। কায়েমী স্বার্থবাদীদের ষড়যন্ত্রের কারনে সিলেটের মানুষ আজ অসহায়। তিনি অবিলম্বে লাখো মানুষের জীবীকাস্থল পাথর কোয়ারী খোলে দিয়ে এ অঞ্চলের মানুষের জীবন রক্ষার আহবান জানান।

 

সভার শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন জাফলং স্টোন ক্রাশার মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ইলিয়াস উদ্দিন লিপু,বক্তব্য রাখেন ছাতক পাথর ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি ওয়াদুদ আলম, সালুটিকর পাথর ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক ইকলাল আহমদ, সাংবাদিক ও ব্যবসায়ী শাব্বির আহমদ, সিলেট জেলা ট্রাক মালিক গ্রুপের সাংগঠনিক সম্পাদক সাংবাদিক শাব্বীর আহমদ ফয়েজ।

 

সভায় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন কোম্পানীগঞ্জ পাথর ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি আব্দুল জলিল, সাধারণ সম্পাদক আবুল হোসেন, ব্যবসায়ী নেতা শওকত আলী বাবুল, জসিমুল ইসলাম আঙ্গুর, মইন উদ্দিন মিলন, মশাহিদ আলী, কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা যুবলীগ আহবায়ক আলা উদ্দিন, জাফলং পাথর ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, বিমানবন্দর থানা স্টোন ক্রাশার মালিক ব্যবসায়ী সমিতি নেতা মো. রফিকুল ইসলাম, সৈয়দ সালেহ আহমদ শাহনাজ, আজির মিয়া, ওলিউর রহমান, আবদুল আহাদ, শানুর আহমদ, জয়নুল আহমদ, সালুটিকর পাথর ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান, ব্যবসায়ী নেতা আরিফ আহমদ সুমন, বিছনাকান্দি পাথর ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক জয়নাল আবেদীন, ব্যবসায়ী আব্দুল মতিন, কোম্পানীগঞ্জ পানি নিষ্কাশন বালুপাথর উত্তোলন ও বহনকারি শ্রমিক সংগঠনের সভাপতি সিরাজুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক মাসুক মিয়া প্রমুখ।

সংবাদটি ভাল লাগলে শেয়ার করুন
0Shares
সংবাদটি ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ শিরোনাম