অনলাইনে ভিসা নবায়নের সুযোগ পেলেন ওমানপ্রবাসীরা

প্রকাশিত: ৫:৫৮ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ৪, ২০২০

অনলাইনে ভিসা নবায়নের সুযোগ পেলেন ওমানপ্রবাসীরা

সোনালী সিলেট ডেস্ক
মহামারি করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে ওমানের সরকারি-বেসরকারি অফিস আদালত সবকিছু বন্ধ ঘোষণা করেছে দেশটির সরকার। এমতাবস্থায় ভিসার মেয়াদ শেষ হওয়ায় অনেক প্রবাসী ভোগান্তিতে পড়েছেন। শুক্রবার দেশটির সরকার প্রবাসীদের মেয়াদোত্তীর্ণ ভিসা নবায়নের সুযোগ দিয়েছে। এখন থেকে রয়্যাল ওমান পুলিশের ওয়েবসাইটের মাধ্যমে অনলাইনে ভিসা নবায়ন করতে পারবেন প্রবাসীরা।

 

ওমান পুলিশের এক ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা জানান, বর্তমান পরিস্থিতিতে কারও থেকেই বিলম্ব ফি/গ্যারামা নেওয়া হবে না। করোনাভাইরাস প্রাদুর্ভাবের কারণে আরওপি অস্থায়ীভাবে তার পরিষেবাগুলি স্থগিত করার পরে এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

 

তিনি জানান, এমন পরিস্থিতিতে ওমানের অভ্যন্তরে অবস্থানরত সকল প্রবাসীরা সহজেই রয়্যাল ওমান পুলিশের ওয়েবসাইটের মাধ্যমে ভিসা নবায়ন করতে পারবে। রেসিডেন্সি ভিসা নবায়ন করতে আরওপি এর সীল প্রয়োজন হবে না, পর্যটকরাও অনলাইনে তাদের ভিসা বাড়িয়ে নিতে পারেন।

 

জানা গেছে, অনলাইন নবায়ন ব্যবস্থাটি বর্তমানে যারা ওমানের বাহিরে আছেন, তাদের ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য। অনেক প্রবাসী আছেন যারা বিমানবন্দর বন্ধ থাকায় দেশে গিয়ে আটকা পড়েছেন, ওমানে আসতে পারছেন না। বর্তমান সময়ে তারাও অনলাইনে ভিসা নবায়ন করতে পারবে। তবে এই মুহূর্তেই যারা ওমানের বাহিরে আছেন, তাদের এখনই নবায়ন না করে ওমানের নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করার পরে অনলাইনে ভিসা নবায়নের পরামর্শ দেন। বিলম্বের জন্য কোনো জরিমানা গুনতে হবে না।

 

বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ১১ লাখ ছাড়িয়েছে। অথচ শুক্রবারও এই সংখ্যাটা ছিল ১০ লাখের কাছাকাছি। অর্থাৎ মাত্র একদিনেই নতুন রোগী শনাক্ত হয়েছেন এক লাখেরও বেশি।

 

জন হপকিন্স ইউনিভার্সিটির তথ্যমতে, বর্তমানে বিশ্বে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ১১ লাখ ২৮৩ জন। মারা গেছেন ৫৮ হাজার ৯২৯ জন। সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত যুক্তরাষ্ট্রে। দেশটিতে অন্তত ২ লাখ ৭৭ হাজার ৯৬৫ জনের শরীরে প্রাণঘাতী এই ভাইরাস ধরা পড়েছে।

 

গত ৩১ ডিসেম্বর চীনের উহানে প্রথমবার শনাক্ত হয় করোনাভাইরাস। ইতোমধ্যেই বিশ্বের অন্তত ১৮১টি দেশে ছড়িয়ে পড়েছে এই ভাইরাস।

সংবাদটি ভাল লাগলে শেয়ার করুন
0Shares
সংবাদটি ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •